শনিবার , ১৩ এপ্রিল ২০২৪
পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে মঙ্গলবার সকালে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. জিল্লুল হাকিম বক্তব্য রাখেন

পাংশায় আওয়ামী লীগের উদ্যোগে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত

॥ মোক্তার হোসেন, পাংশা (রাজবাড়ী) প্রতিনিধি ॥

রাজবাড়ী জেলার পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের উদ্যোগে মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারী) যথাযোগ্য মর্যাদায় বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে জাতীয় পতাকা, আওয়ামী লীগের দলীয় পতাকা ও সহযোগী সংগঠনসমূহের পতাকা উত্তোলন, বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ, আলোচনা ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়।

পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মাছপাড়া ইউপির চেয়ারম্যান খন্দকার সাইফুল ইসলাম বুড়োর সভাপতিত্বে এবং পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মো. আব্দুল ওহাব মন্ডলের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে রাজবাড়ী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও রাজবাড়ী-২ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. জিল্লুল হাকিম বক্তব্য রাখেন।

 

প্রধান অতিথি জিল্লুল হাকিম এমপি বলেন, বঙ্গবন্ধু দেশের স্বাধীনতা দিয়ে গেছেন, আর তার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিশ্বের বুকে বাংলাদেশকে মর্যাদার আসনে অধিষ্ঠিত করেছেন। বিশ্বে বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে স্বীকৃত। কিন্তু বাংলাদেশের উন্নয়ন বিএনপির চোখে পড়ে না।

তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক চক্রান্তে স্বাধীনতাবিরোধী চক্র বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে। কিন্তু স্বাধীনতাবিরোধীরা বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করলেও তাদের পরিকল্পনা সফল হয় নাই। সারা বাঙালীর হৃদয়ে আজীবন বেঁচে থাকবেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান।

এমপি জিল্লুল হাকিম আরো বলেন, বঙ্গবন্ধু যুদ্ধবিধ্বস্ত স্বাধীন বাংলাদেশের উন্নয়নে ব্যাপক পরিকল্পনা গ্রহণ করেছিলেন। ধ্বংসস্তুপ থেকে বাংলাদেশকে গড়ে তোলার চেষ্টা করেছিলেন তিনি। ’৭৪ এর দুর্ভিক্ষ, বন্যা ও ফসলহানিতে দেশের মানুষের জন্য বিদেশ থেকে খাদ্য আমদানী করেছিলেন বঙ্গবন্ধু। কিন্তু তখন খাদ্য আমদানীতেও বাধা দেওয়া হয়েছিল।

প্রধান অতিথি জিল্লুল হাকিম এমপি বলেন, বঙ্গবন্ধু দেশের স্বাধীনতা দিয়ে গেছেন, আর তার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিশ্বের বুকে বাংলাদেশকে মর্যাদার আসনে অধিষ্ঠিত করেছেন। বিশ্বে বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে স্বীকৃত। কিন্তু বাংলাদেশের উন্নয়ন বিএনপির চোখে পড়ে না।

আন্দোলনের নামে বিএনপি দেশের মধ্যে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করছে। বিএনপির অপপ্রচারে প্রতিরোধ গড়ে তোলার জন্য দলীয় নেতাকর্মীদের সাংগঠনিক দিক নির্দেশনা প্রদান করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. জিল্লুল হাকিম। একই সাথে এখন থেকেই আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রস্তুতি গ্রহণের কথা উল্লেখ করেন তিনি।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে রাজবাড়ী জেলা পরিষদের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান, রাজবাড়ী জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ও পাংশা সরকারী কলেজের অবসরপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ একেএম শফিকুল মোরশেদ আরুজ বক্তব্য রাখেন।

অন্যান্যের মধ্যে পাংশা পৌরসভার মেয়র ও পাংশা পৌরসভা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. ওয়াজেদ আলী মাস্টার, রাজবাড়ী জেলা পরিষদের সংরক্ষিত ওয়ার্ডের সদস্য, পাংশা উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও মাছপাড়া বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সফুরা খাতুন,

পাংশা উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও পাংশা উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত আহবায়ক মো. জালাল উদ্দিন বিশ্বাস, পাংশা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কামাল আল মামুন প্রমূখ নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন।

অনুষ্ঠানে দোয়া ও মোনাজাত পরিচালনা করেন পাংশা উপজেলা আওয়ামী লীগের ধর্মীয় সম্পাদক ও চরঝিকড়ী মকবুল হোসেন স্মৃতি দাখিল মাদরাসার সুপার মাওলানা মো. আব্দুল কুদ্দুস। অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Check Also

ঈদুল ফিতর উপলক্ষ্যে জাতীয় যুব জোট রাজশাহী মহানগর শুভেচ্ছা বার্তা

॥ রাজশাহী জেলা প্রতিনিধি ॥ জাতীয় যুব জোট রাজশাহী মহানগর সভাপতি শরিফুল ইসলাম সুজন ও …