বৃহস্পতিবার , ৩০ মে ২০২৪

মোংলা ইপিজেডে বিনিয়োগের পরিমান প্রায় ১৩৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলার, নতুন আরো ৮৬টি প্লটের অনুমোদন

॥ বাগেরহাট প্রতিনিধি ॥

“আজ বিনিয়োগ করুন-আগামী কাল তার ফল উপভোগ করুন” শীর্ষক এক বিনিয়োগ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার দুপুরে বাংলাদেশ রপ্তানি প্রক্রিয়াকরণ এলাকা মোংলা (বেপজা) এর হল রুমে বিনিয়োগকারী সদস্যগনকে নিয়ে সেমিনারটি অনুষ্ঠিত হয়। এসময় বেপজা’র নন্মানিত সদস্য (নিনিয়োগ ও উন্নয়ন) আলী রেজা মজিদ উক্ত সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

 

দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চলের উন্নয়ন অগ্রগতিতে মোংলা ইপিজেড অনন্য ভূমিকা পালন করছে সরকারের এ প্রতিষ্ঠানটি। তাই “ইনভেষ্ট টুডে-ইনজয় টুমরো” শীর্ষক সেমিনারে মোংলা ইপিজেডের বিদ্যমান বিনিয়োগকারী, সম্ভাব্য নতুন বিনিয়োগকারীসহ বিভিন্ন চেম্বার অব কমার্স প্রতিনিধি, ব্যাংক, বীমা, সরকারি ও বেসরকারি দপ্তর, পরিদপ্তরের প্রতিনিধিরা এ সেমিনারে অংশ গ্রহন করেণ।

ইপিজেড কর্তৃপক্ষ সুত্রে জানায়, ১৯৯৮সালের ২৩ মে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক ভিত্তিপ্রস্তুত স্থাপনের মাধ্যমে মোংলা ইপিজেডের যাত্রা শুরু হয়। শুরুর দিকে মোংলা ইপিজেড পিছিয়ে থাকলেও বর্তমানে দেশের দক্ষিণ পশ্চিমাঞ্চলের উন্নয়ন অগ্রগতিতে মোংলা ইপিজেড অনন্য ভূমিকা পালন করছে সরকারের এ প্রতিষ্ঠানটি।

তাই “ইনভেষ্ট টুডে-ইনজয় টুমরো” শীর্ষক সেমিনারে মোংলা ইপিজেডের বিদ্যমান বিনিয়োগকারী, সম্ভাব্য নতুন বিনিয়োগকারীসহ বিভিন্ন চেম্বার অব কমার্স প্রতিনিধি, ব্যাংক, বীমা, সরকারি ও বেসরকারি দপ্তর, পরিদপ্তরের প্রতিনিধিরা এ সেমিনারে অংশ গ্রহন করেণ।

মোংলা ইপিজেডের নির্বাহী পরিচালনক মাহবুব আহাম্মেদ সিদ্দিকী বলেন, বর্তমানে ইপিজেডে প্রায় ১১ হাজারেরও বেশী শ্রমিক-কর্মচারীর কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। বর্তমানে মোংলা ইপিজেডে মোট বিনিয়োগের পরিমান প্রায় ১৩৪ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। এখানে দেশি-বিদেশি মোট ৩১ টি শিল্প প্রতিষ্ঠান বর্তমানে চালু রয়েছে

এবং ৯টি শিল্প প্রতিষ্ঠান সম্প্রতি মোংলা ইপিজেডে ব্যবসা স্থাপনের জন্য বেপজা কর্তৃপক্ষের সাথে চুক্তি স্বাক্ষর করেছে । বর্তমানে মোংলা ইপিজেডে খালি প্লটের সংখ্যা মাত্র ২টি। বাংলাদেশের বর্তমান সরকার প্রধানের দৃপ্ত কঠিন অঙ্গিকারে নির্মিত পদ্মা সেতু চালু হওয়ায় বিনিয়োগকারীদের চাহিদা বৃদ্ধির বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে বেপজা কর্তৃপক্ষ মোংলা ইপিজেডে আরও

৮৬ টি প্লট অনুমোদন দিয়েছেন সরকারের পক্ষ থেকে এমন অনুমতি পেয়েছেন বেপজা। তাই সম্ভাবনাময় মোংলার এ ইপিজেড আগামী দিনগুলো সুন্দর পরিবেশ ও শিল্প বান্ধব প্রতিষ্ঠানে পরিনত করার পরিকল্পনা রয়েছে কর্তৃপক্ষের।

দেশের অন্যান্য ইপিজেডের তুলনায় মোংলা ইপিজেড ব্যাবসায়ীদের অনেক সুযোগ-সুবিধা দিচ্ছেন। এছাড়া কম মুল্যে প্লট বরাদ্ধ, শ্রমিকদের পরিবেশ বান্ধব থাকা ও খাওয়ার ব্যাবস্থা, দেশী-বিদেশী বিনিয়োগকারীদের ব্যাপক নিরাপত্তার ব্যাবস্থা করা হয়েছে। তাই দেশের বিনিয়োগকারীদের মোংলা ইপিজেডে ব্যাবসায়ীক প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার আহবান জানায় বেপজা কর্তৃপক্ষ।

মোংলা ইপিজেডের নির্বাহী পরিচালক জনাব মাহবুব আহমেদ সিদ্দিক এর সভাপতিত্বে তিনিই উক্ত সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন। এসময় বাংলাদেশ শিল্প পুলিশ-৬ এর পুলিশ সুপার কানাই লাল সরকার,

মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের হারবার মাস্টার ক্যাপ্টেন শাহীন মাজিদ, মোংলা কাস্টমস্ হাউসের যুগ্ম কমিশনার মোঃ মাহফুজুর রহমান, জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থা (এন এস আই) এর উপ-পরিচালক মোঃ সাঈদ হোসেন,

পরিবেশ অধিদপ্তর-খুলনা’র উপ-পরিচালক জনাব মো: কামরুজ্জামান ও মোংলা ইপিজেডের শ্রম-শিল্প সম্পর্ক ও বাণিজ্যিক পরিচালন বিভাগের অতিরিক্ত নির্বাহী পরিচালক জনাব মোঃ ওয়াহিদুজ্জামান সহ ইপিজেড কর্মকর্তা ও সকল বিনিয়োগকারীরা উপস্থিত ছিলেন।

Check Also

গোয়ালন্দে ধান-চাল -গম ক্রয় কার্যক্রমের উদ্বোধন

॥ আবুল হোসেন, রাজবাড়ী জেলা প্রতিনিধি ॥ রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে সরকারীভাবে বোরো ধান,চাল ও গম ক্রয় …